সব খবর সবার আগে
বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

জাতীয়

শত কোটি টাকা প্রতারণায় অভিযুক্ত বাংলাদেশের প্রাণনাথ ভারতে গ্রেফতার

বাংলাদেশে শত শত কোটি টাকা প্রতারণা ও অর্থ পাচারে অভিযুক্ত সাতক্ষীরা প্রগতি সঞ্চয় ও ঋণদান কো-অপারেটিভ সোসাইটির নির্বাহী পরিচালক প্রাণনাথ দাশ ভারতে গ্রেফতার হয়েছেন। গোপন সূত্রের ভিত্তিতে পশ্চিমবঙ্গের উত্তর ২৪ পরগনা জেলার গোবরডাঙ্গা থানা এলাকায় থেকে গত রোববার রাতে অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করে পশ্চিমবঙ্গ পুলিশের স্পেশাল টাস্ক ফোর্স (‌এসটিএফ)।

0 46

সোমবার তাকে আদালতে নেওয়া হলে ১৪ দিনের বিচার বিভাগীয় জেল হেফাজতের নির্দেশ দেন বারাসাত আদালত। আজ বৃহস্পতিবার জানা গেছে, বর্তমানে কলকাতা বিমানবন্দর সংলগ্ন দমদম সেন্ট্রাল জেলে রয়েছেন প্রাণনাথ দাশ।

পুলিশ জানায়, ২০১২ সালে প্রগতি সঞ্চয় ও ঋণদান কো-অপারেটিভ সোসাইটি খোলেন প্রাণনাথ। সোসাইটির চেয়ারম্যান হিসেবে নিজের স্ত্রী ইতি রানী বিশ্বাস, সাধারণ সম্পাদক হিসেবে বড় ভাই বিশ্বনাথ দাশকে নিযুক্ত করেন। লাখপ্রতি মাসে দেড় হাজার টাকা মুনাফা এবং ডিপিএসে সঞ্চয়কৃত টাকা পাঁচ বছরে দ্বিগুণ দেওয়ার প্রলোভন দেখিয়ে কমপক্ষে ২০ হাজার মানুষের কাছ থেকে শতকোটি টাকা হাতিয়ে ২০২৩ সালের ডিসেম্বরে সপরিবারে ভারতে পালিয়া আসেন তিনি। এরপরেই সাতক্ষীরায় বিক্ষোভ করেন ভুক্তভোগীরা।

এসটিএফের তথ্যমতে, ভারতে আগে থেকেই নিজের ও পরিবারের অন্য সদস্যদের ভুয়া ভারতীয় নথি তৈরি করে রেখেছিলেন প্রাণনাথ। গ্রাহকদের আত্মসাৎ করা অর্থে কলকাতার নিউ টাউনে কিনেছিলেন কয়েক কোটি টাকার বাড়ি। সাতক্ষীরার শ্যামনগরের রমজাননগরের সীমান্ত হয়ে ভারতে অবৈধ অনুপ্রবেশ করেন তিনি ও তার পরিবার। এরপর নিউটাউনের সেই বাড়িতে উঠেন পরিবার নিয়ে।

এসটিএফের দাবি, রোববার বাংলাদেশে ফেরার চেষ্টা করছিলেন প্রাণনাথ। এ সময় তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। যদিও তার পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের অবস্থান সম্পর্কে কোনো তথ্য জানায়নি এসটিএফ।

প্রাণনাথ দাশের বিরুদ্ধে অবৈধ প্রবেশ ও পাসপোর্ট আইনে মামলা দায়ের করেছে কলকাতা পুলিশ।

সর্বশেষ খবর এবং আপডেটের জন্য আমাদের সাবস্ক্রাইব করুন। আপনি যেকোনো সময় বন্ধ করতে পারবেন।

Loading...

আমরা কুকি ব্যবহার করি যাতে অনলাইনে আপনার বিচরণ স্বচ্ছন্দ হয়। সবগুলো কুকি ব্যবহারের জন্য আপনি সম্মতি দিচ্ছেন কিনা জানান। হ্যাঁ, আমি সম্মতি দিচ্ছি। বিস্তারিত